ইয়েমেনে যুদ্ধবিরতি প্রতিষ্ঠায় জাতিসংঘের প্রতিনিধি

eamen e juddho

সংলাপ ॥ জাতিসংঘের ইয়েমেন বিষয়ক বিশেষ প্রতিনিধি মার্টিন গ্রিফিত্স যুদ্ধবিরতি প্রতিষ্ঠার উপায় নিয়ে আনসারুল্লাহ আন্দোলনের সঙ্গে আলোচনা করার উদ্দেশ্যে সানা সফরে গেছেন। তিনি এ সফরে স্টকহোম শান্তি চুক্তির ভিত্তিতে যুদ্ধবিরতি প্রতিষ্ঠা করা যায় কিনা তা নিয়ে আনসারুল্লাহ নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করবেন বলে বার্তা সংস্থাগুলো জানিয়েছে।

সানা সফরে যাওয়ার আগে গ্রিফিত্স শুক্রবার রিয়াদ সফরে গিয়ে সৌদি উপ-প্রতিরক্ষামন্ত্রী খালিদ বিন সালমানের সঙ্গে বৈঠক করেন।

সুইডেনের রাজধানী স্টকহোমে গত বছরের ডিসেম্বরে সৌদি আরব ও ইয়েমেনের আনসারুল্লাহ প্রতিনিধিদের মধ্যে স্বাক্ষরিত শান্তি চুক্তি অনুযায়ী ২০১৮ সালের ১৮ ডিসেম্বর থেকে ইয়েমেনের হুদায়দা প্রদেশে যুদ্ধবিরতি প্রতিষ্ঠিত হয়। কিন্তু সৌদি বাহিনী প্রতিদিনই ওই চুক্তি লঙ্ঘন করছে। ইয়েমেনে মানবিক ত্রাণ পাঠানো হলে তা গ্রহণের প্রধান সমুদ্রবন্দর হচ্ছে হুদায়দা। জাতিসংঘের উদ্যোগে এ পর্যন্ত ইয়েমেনে যুদ্ধবিরতি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে বেশ কয়েকটি পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। কিন্তু সৌদি আরবের ষড়যন্ত্র ও গোয়ার্তুমির কারণে প্রতিটি পদক্ষেপ ব্যর্থ হয়েছে।

ইয়েমেনের পদত্যাগকারী ও পলাতক প্রেসিডেন্ট আব্দ্ রাব্বু মানসুর হাদিকে আবার ক্ষমতায় বসানো এবং জনপ্রিয় হুথি আনসারুল্লাহ আন্দোলনকে নির্মূল করার লক্ষ্যে সৌদি নেতৃত্বাধীন বাহিনী ২০১৫ সালের মার্চ মাস থেকে ইয়েমেনে আগ্রাসন চালাচ্ছে। গত প্রায় পাঁচ বছরের আগ্রাসনে অন্তত ১৬ হাজার নিরীহ ইয়েমেনি নিহত হওয়া সত্ত্বেও সৌদি আরব তার কাঙ্খিত কোনো লক্ষ্য অর্জন করতে পারেনি।